নায়ক ফারুককে পুরস্কৃত নয় তিরস্কৃত করা উচিত: আমীরে শরীয়ত আল্লামা জাফরুল্লাহ খান

0
490

নায়ক ফারুককে পুরস্কৃত নয় তিরস্কৃত করা উচিত বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলন প্রধান আমীরে শরীয়ত আল্লামা জাফরুল্লাহ খান (পীর সাহেব মদিনাবাগবলেছেন, ওলামা একরাম মানুষকে জিকির-আজকার এবাদত বন্দেগী ও ইসলামের বিধি-বিধান শিক্ষা দিয়ে দেশের শান্তি শৃঙ্খলা ও স্থিতিশীলতা প্রতিষ্ঠার জন্য চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন, কিন্তু কিছু কিছু ইসলাম বিদ্বেষী নেতা বিপরীত ধর্মী বক্তব্য ও কাজ করে ওলামায়ে কেরাম এর প্রচেষ্টা নস্যাৎ করার প্রয়াস চালাচ্ছে, যেমন গেলো কয়দিন আগে সংবাদ মাধ্যমে দেখলাম নায়ক ফারুক সাহেব বলেছেন, দেশে ইসলাম প্রতিষ্ঠার জন্য আমরা দেশ স্বাধীন করি নাই, অথচ দেশের স্থপতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বলেছেন,দেশে ইসলাম বিরোধী কোন কাজ করা যাবে না, ধর্মনিরপেক্ষতা অর্থ ও ধর্মহীনতা নয় তারপর তিনি এদেশে ইসলাম প্রচারের জন্য ইসলামিক ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠা করেছেন, ইসলাম গোরহিত মদ ও জুয়া বন্ধ করেছেন তাবলীগ জামাতের জন্য বিশাল বড় জায়গা দিয়ে ইসলাম প্রতিষ্ঠার কাজ করেছেন, এখন ছোটদের মুখে এ ধরনের উক্তি শোভা পায়না, এতে বঙ্গবন্ধুর অবস্থানের বিরুদ্ধে কথা বলা হয়, সুতরাং নায়ক ফারুক সাহেব যে অপাংতেও কথা বলেছেন তাতে তাকে এমপি বানিয়ে পুরস্কৃত নয় তিরস্কৃত করা উচিত

জনাব খান আজ খেলাফত আন্দোলন ঢাকা মহানগরী আয়োজিত দোয়া ও জিকির মাহফিলে এসব কথা বলেন, মহানগরী আমীর মাওলানা মোহাম্মদ হোসাইন আকন্দের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় তিনি আরো বলেন ইসলামের আদর্শ পুরোপুরি অনুসরণ করলেই মানুষ সভ্য হতে পারে ,ইসলামের আদর্শের অনুসরণ ছাড়া মানুষ প্রকৃত মোশন হতে পারে না, আলেম হোক বা কোন নেতা হোক মহানবী(সাঃ) এর আদর্শের পরিপন্থী কাজ করলে সে সন্ত্রাসী ও জঙ্গি ছাড়া কিছুই নয়

হযরত মহানবী সাল্লাল্লাহু সাল্লাম এরশাদ করেছেন প্রকৃত মুসলমান সেই ব্যক্তি যার হাত ও মুখের আক্রমণ থেকে অন্য মুসলমান নিরাপদ থাকে,তাবলীগ জামাতের প্রসঙ্গ টেনে বলেন বর্তমান সময়ের তাবলীগ জামাতের মধ্যে অনাকাঙ্খিত ঘটনা করেছে আমরা আশা করি আমাদের প্রধানমন্ত্রী ইসলামিক শিক্ষার সনদ দিয়ে যেভাবে উজ্জ্বল ভূমিকা রেখেছেন ,ইসলাম প্রতিষ্ঠার কাজ করেছেন তদুরুপ মুসলিম বিশ্ব তথা সৌদি আরব কুয়েত ও সমন্বয় সম্মেলন করে তথা শরীয়তের দৃষ্টিতে তাবলীগ জামাতের বর্তমান সংকট নিরসনের জন্য সরাসরি ভাবে একটি উদ্যোগ গ্রহণ করবেন এ সময় আরো বক্তব্য প্রদান করেন জনাব আলহাজ্ব আজম খান, হযরত মাওলানা খালেদ সাইফুল্লাহ, মাওলানা বনিইয়ামিন প্রমুখ আমরা দোয়া করছি যেন আল্লাহ্ তায়ালা এই উদ্যোগ গ্রহণ তাওফীক দান করেন– আমিন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here